English|Bangla আজ ২রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার রাত ১:১৪
শিরোনাম
পত্নীতলায় প্রধানমন্ত্রীর উপহার শিশু খাদ্য বিতরণসাপাহারে ভুয়া কবিরাজের চিকিৎসায় হাত হারাতে বসেছে সাত বছরের শিশু!পলাশবাড়ীতে জাতীয় শোক দিবস পালন উপলক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিতনাগেশ্বরী কামিল মাদরাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ হলেন মোহাম্মদ অাব্দুল অাউয়ালকুড়িগ্রামে মোবাইলে অনলাইনে গেম খেলায় ১১ শিক্ষার্থী আটক- মুচলেকায় অভিভাবকের কাছে হস্তান্তরডিসিসিআই’র আয়োজনে ” সাস্টেইনএবল রিভার ড্রেজিং: চ‍্যালেঞ্জেস এন্ড ওয়ে ফরওয়ার্ড ” শীর্ষক অনলাইন আলোচনা সভায় নৌ প্রতিমন্ত্রীখানসামায় লকডাউন বাস্তবায়নে চলছে এসিল্যান্ড এর বাজার মনিটরিং ও ভ্রাম্যমাণ অভিযানচাঁপাইনবাবগঞ্জে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃত্যু ১, শনাক্ত ২৭বান্দরবানে টানা বর্ষণে পানিবন্দী মানুষের মাঝে খাবার পৌঁছে দিল সেনাবাহিনীচট্রগ্রাম নগরীর আগ্রাবাদে নারী ছিনতাইকারী গ্রেফতার

দেশে অতি টার্নিং উইকেট বানিয়ে আখেরে লাভ নেই, বাংলাদেশকে হরভজন

নিজে ছিলেন অফ স্পিনার। হরভজন সিংয়ের রমরমা সময়ে দেশে স্পিনিং উইকেট বানিয়ে হরদম সাফল্য পেত ভারতও। কিন্তু দেশের বাইরে স্পোর্টিং উইকেটে খেলতে গেলে ভুগতে হতো তখনকার ভারতকে। বাংলাদেশেরও এখন হয়েছে একই দশা। হরভজন মনে করেন, চরম স্পিন সহায়ক উইকেট বানিয়ে হয়তো ঘরের মাটিতে ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে দেওয়া সম্ভব বাংলাদেশের পক্ষে। কিন্তু প্রকৃত উন্নতি করতে হলে দরকার ভালো উইকেটে খেলা।

কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে দারুণ সব কীর্তি আছে হরভজনের। অসধারণ সব স্পেলে দলকে জেতানোর ইতিহাস আছে তার। প্রিয় এই মাঠেই গোলাপি বলের টেস্টে ভারতের জয়ের পাশাপাশি বাংলাদেশের কাছ থেকেও লড়াই আশা করেছিলেন এই অফ স্পিনার। কিন্তু বিন্দুমাত্র লড়াই না করে বাংলাদেশ আত্মসমর্পণ করেছে রবিবার (২৪ নভেম্বর) তৃতীয় দিনের প্রথম ঘণ্টাতেই।

ইডেন টেস্ট শেষ হওয়ায় ধারাভাষ্য দিতে আসা হরভজনের কাজও ফুরিয়েছে আগেভাগে। এই টেস্ট নিয়ে নানা কথার মাঝে বাংলাদেশকে নিয়ে নিজের ভাবনার কথা জানান তিনি, ‘আমার মনে হয়, তাদের অনেক কাজ করতে হবে। ঘরের মাঠে তারা খুব ভালো দল। তারা চরম স্পিন সহায়ক উইকেট বানিয়ে ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছে। এমন উইকেট বানিয়ে ওদের আপনি হারাতেই পারেন। কিন্তু তাদের সবমিলিয়ে ভালো দল হতে হবে। নিজেদের পরীক্ষার সামনে ফেলতে হবে, ভালো উইকেট বানাতে হবে।’

বাংলাদেশের এমন বাজে পারফরম্যান্সের জন্য সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবালদের না থাকা একটা কারণ বলে মনে করছেন বিরাট কোহলি। তবে হরভজন মনে করেন, তারা না থাকলেও বাকিদের এগিয়ে আসা উচিত ছিল। কোহলি না খেললেও ভারত বিপদে পড়ে না, বাংলাদেশকে সেই জায়গায় যাওয়ার পরামর্শ তার, ‘হ্যাঁ, তারা (সাকিব-তামিম) ছিল না, কিন্তু কারও একজনের এগিয়ে আসা দরকার ছিল। ভারতে কিন্তু অনেক ক্রিকেটার। কাল যদি বিরাট কোহলি না খেলে, তবু ভারত লড়াইয়ে জিতবে। এখানে অনেক খেলোয়াড় তৈরি হচ্ছে। বাংলাদেশকেও তা-ই করতে হবে।’

ইডেন টেস্টে বাংলাদেশের যা কিছু অর্জন, তা মুশফিকুর রহিমকে নিয়েই। চোট পাওয়ার আগে দারুণ খেলেন মাহমুদউল্লাহও। এই দুজনের প্রশংসা করেছেন হরভজন, ‘মুশফিকুরের কাছ থেকে শিখতে হবে, মাহমুদউল্লাহ কাল (আগের দিন) অনেক সাহস দেখিয়েছে। টেস্ট ক্রিকেটে আপনাকে সাহস দেখাতে হবে। কেবল টেকনিকের খেলা নয়, সাহসেরও খেলা ক্রিকেট। বিশেষ করে মুশফিকের কাছ থেকে শিখতে হবে। আমার গভীর শ্রদ্ধা তার প্রতি।’

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো