English|Bangla আজ ১৬ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার সকাল ৮:১১
শিরোনাম
অবহেলা শিকার স্বেচ্ছা রক্তদাতারা -জান্নাত আরা জুঁইপলাশবাড়ীতে র‌্যাবের অভিযানে মাদক ও অর্থসহ গ্রেফতার-১পাটগ্রামে শিক্ষার্থীদের মাঝে র‌্যাবের মাদক ও জঙ্গিবিরোধী প্রচারণাভারত থেকে অবৈধভাবে ফেরার পথে দহগ্রামে দুই বাংলাদেশী আটকপাটগ্রামে বর্ণাঢ্য আয়োজনে শেখ হাসিনার জন্মদিন পালনবান্দরবানে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধারপাটগ্রাম প্রেসক্লাবে উপহার সামগ্রী প্রদান“বিসকা ইউনিয়নের ১ ইঞ্চি রাস্তাও কাঁচা থাকবেনা”রাস্তা উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানে বললেন বাবুল মিয়া সরকার।পলাশবাড়ীতে ডায়াবেটিকস সমিতির ওয়াশরুম উদ্বোধনখানসামায় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদকের বহিষ্কার আদেশ প্রত্যাহার করায় আনন্দ মিছিল

খানসামার পুরোনো ঐতিহ্যের জয়সঙ্কর জমিদার বাড়িটি এখন বিলুপ্তির দ্বারপ্রান্তে

জে আর জামান, খানসামা দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ দীর্ঘদিন অযত্ন আর অবহেলায় দিনাজপুরের খানসামা উপজেলা সদর থেকে ৯ কিলোমিটার উত্তর-পশ্চিমে আত্রাই নদীর তীরে আলোকঝাড়ি ইউনিয়নের জয়গঞ্জ গ্রামে অতীত ঐতিহ্যের জয়শঙ্কর জমিদার বাড়িটি এখন বিলুপ্তির পথে।

অযত্নে জয়শঙ্কর রায় চৌধুরীর জমিদার বাড়িটি এখন ভগ্নদশায় পরিণত হয়েছে। জমিদার বাড়ির অনেক কিছুই নষ্টের পাশাপাশি চুরি হয়ে গেছে। বর্তমানে পূর্ব-পশ্চিমে লম্বা একতলা বাড়িটিতে তিনটি বারান্দা, একটি বসার ঘর, একটি থাকার ঘর, সম্পদ রাখার একটি ঘর এবং একটি মন্দির কক্ষ রয়েছে। বাড়িটির তিনটি বারান্দায় ৩০টি পিলার এবং পূর্ব থেকে প্রথম ঘরটিতে নয়টি দরজা এবং সভার কাজ পরিচালনার ঘরটিতে ১০টি দরজা রয়েছে। জমিদার বাড়িটির পূর্বে কয়েক গজ দূরে রয়েছে একটি ইন্দ্রা বা কুয়া। ওই কুয়ার পানি জমিদার বাড়িতে ব্যবহৃত হতো। এখন ইন্দ্রাটি অকেজো অবস্থায় রয়েছে। সংস্কারের অভাবে বড়িটির দেয়ালের অংশ এখন প্রায় ৩০-৪০ ভাগ নষ্ট হয়ে গেছে। পড়ে থাকা ঝোপ-জঙ্গলের মাঝে পুরনো ঐতিহ্যকে ধারণ করে দাঁড়িয়ে রয়েছে জয়গঞ্জ জমিদার বাড়ি। আর পাশে কালের সাক্ষী হয়ে দাঁড়িয়ে আছে জমিদার আমলের সেই বটগাছটি।

সরেজমিনে দেখা যায়, দীর্ঘদিন অযত্নে পড়ে থাকা বাড়িটির চারপাশের ঘন জঙ্গল পরিষ্কার করে উপজেলা প্রশাসন ৫০টি পরিবারের জন্য একটি গুচ্ছগ্রাম স্থাপন করে দেয়। ওই বাড়ির প্রবেশদ্বারে যে লোহার গেটটি রয়েছে তা এখন খানসামা থানার প্রবেশ পথ হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে। জমিদারি থাকাকালে স্থাপিত জয়গঞ্জ বাজারটিও গত প্রায় ২০ বছর পূর্বে বিলুপ্ত হয়ে গেছে। শুধু দাঁড়িয়ে আছে জমিদার আমলের সেই বটগাছটি।

এলাকাবাসীরা বলছেন, সংস্কার করলে আবারও নতুন রূপে পুরোকীর্তির ঐতিহ্য ফিরে পেতে পারে জমিদার বাড়িটির অবয়ব। গড়ে উঠতে পারে পর্যটকদের কেন্দ্রবিন্দুতে। । এখনো দূর-দূরান্ত থেকে অনেক মানুষ ইতিহাসখ্যাত জয়গঞ্জ জমিদার বাড়িটি দেখার জন্য আসেন।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো