English|Bangla আজ ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার রাত ৪:৩০
শিরোনাম
গাজীপুরের শ্রীপুরে মানসিক ভারসাম্যহীন ছেলের হাতে মা খুন।রায়পুরে রাজকীয়ভাবে পুলিশ সদস্যের বিদায় !কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে যুবলীগ নেতার অর্থায়নে শীত বস্ত্র বিতরণইএইচডি প্রকল্পের পক্ষ থেকে বিশ্ব প্রতিবন্ধী দিবস উদযাপনজনগন ধরে দিলেন মুনা হত্যা মামলার প্রধান আসামী মাদকাসক্ত ফুয়াদ গ্রেফতারশ্রীমঙ্গলে বলৎকারের অভিযোগে প্রধান শিক্ষককে সাময়িক বহিষ্কারমোংলা পোর্ট পৌরসভায় নির্বাচনী হাওয়ামুরাদনগরে স্বাস্থ্য কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সরকারি গাছ কর্তনের অভিযোগনান্দাইলে রাস্তায় নির্মাণ সামগ্রী রাখায় ২ জনকে ৫ হাজার টাকা জরিমানানান্দাইলে মাস্ক না পরায় ২০ জনকে ৭হাজার ২শত টাকা জরিমানা

ইউএনও’র ফোন ক্লোন করে ৮১ হাজার টাকা হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারক

বদরুল আমীন, ময়মনসিংহঃ

ময়মনসিংহ জেলার ঈশ্ব¦রগজ্ঞ উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মোবাইল নাম্বার ক্লোন করার অভিযোগ এনে গত ১৯ জুন উপজেলা নির্বাহী অফিসার সংশ্লিষ্ট থানায় জিডি করলেও পুলিশ এখনো রহস্যের কোন কিনারা করতে পারেনি। অপরদিকে ১৮ জুন উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাম্বার থেকে ফোন করে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে সল্প মূল্যে ল্যাপটপ দেয়ার নামে ২ টি বিকাশ নাম্বারে বিকাশের মাধ্যমে ৮১ হাজার টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

ঈশ্বরগজ্ঞ উপজেলা নির্বাহী অফিসার, তার ফেসবুক আইডিতে ১৯ জুন একটি পোস্টে লিখেছেন, তার অফিসিয়াল মোবাইল নাম্বার ০১৭৩৩-৩৭৩৩৩৬ নাম্বারটি প্রতারক চক্র ক্লোন করেছে। এ ব্যপারে ঈশ্বরগজ্ঞ থানায় জিডি করা হয়েছে। এ পোস্টে তিনি সকলকে সতর্কও করেদেন।

প্রপ্ত তথ্যে জানা যায়, গত ১৮ জুন ঈশ্বরগজ্ঞ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাম্বার থেকে ফোন করে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের ফোন করে বলে সরকার আপনাদের সল্প মূল্যে ল্যাপটপ দিচ্ছে। যার মূল্য ধরা হয়েছে মাত্র ৯ হাজার টাকা। উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাম্বার থেকে এমন ফোন পেয়ে ৯ জন শিক্ষক ঐদিনই ৮১ হাজার টাকা ২ টি বিকাশ নাম্বারে পরিশোধ করেন। পরদিন শিক্ষকগন জানতে পারে, এটি প্রতারক চক্র! উপজেলা নির্বাহী অফিসার ঘটনাটি অবগত হয়ে ১৯ জুন ঈশ্বরগজ্ঞ থানায় সাধারন ডায়েরী করেন। একইদিনে ফেসবুকে পোস্ট দেন তার নাম্বারটি ক্লোন করা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের পোস্টটিতে, প্রতারনার শিকার হওয়া শিক্ষকদের বিরুদ্ধে বিরোপ মানহানিকর মন্তব্য করেন অনেকে। শিক্ষকগন মনে করেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এধরনের মন্তব্য ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ বলে তারা মনে করেন। পোস্টে মন্তব্যকারী ফেরদৌস টিটু ও উবায়দুল্লাহ রুমির শাস্তী দাবী করেন প্রতারিত শিক্ষকগন।
ঈশ্বরগজ্ঞ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নাম্বার থেকে ল্যাপটপ দেয়ার কথা বলে যে বিকাশ নাম্বারে টাকা নেয়া হয় সে নাম্বার ২ টি হচ্ছে ০১৮৭০-৭৭২০৭৭ ও ০১৮৭০-৭৭১৭৮৬ । ১৮ ও ১৯ জুন/২০২০ বিকাশের মাধ্যমে এ টাকা নেয়া হয় বলে অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে।

ঈশ্বরগজ্ঞ উপজেলা নির্বাহী অফিসার তার অফিসিয়াল নাম্বার ক্লোন হওয়ার ব্যপারে স্থানীয় থানায় সাধারন ডায়েরী করেন। পুলিশ কোন কুলকিনারা করতে পারেনি। শিক্ষকদের মাঝে এনিয়ে সন্দেহ দেখা দিয়েছে। অপরদিকে ভুক্তভোগীরা স্থানীয় প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে প্রতিকার চেয়ে আবেদন করেছেন। দীর্ঘ ২৪ দিনেও এর কোন সুরাহা বা প্রতিকার পায়নি বলে শিক্ষকরা জানিয়েছেন।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো