English|Bangla আজ ১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার সকাল ৯:০৭
শিরোনাম
গংগাচড়ায় জেলা আ.লীগের সাধারন সম্পাদকের পক্ষ থেকে শীতবস্ত্র বিতরণঅসহায় মানুষের পাশে শীতবস্ত্র নিয়ে রংপুরিয়ান-ওয়ার্ল্ড ওয়াইডছায়ানট সাংস্কৃতিক সংস্থা, ময়মনসিংহ এর ৩ যুগ পূর্তি উপলক্ষে গুণীজন সংবর্ধনা ও পুরস্কার বিতরণতরুণদের মাদক থেকে দূরে রাখতে খেলাধুলা বাড়াতে হবে ; তানভিরনাগেশ্বরী পৌরসভা নির্বাচনে মোহাম্মদ হোসেন ফাকু বিজয়ীগাইবান্ধা ও সুন্দরগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচন শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোটগ্রহণ শেষে চলছে গণনাগাজীপুরে যুবলীগের আয়োজনে মাইনুল হোসেন খান নিখিলের রোগমুক্তি কামনায়,দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।পলাশবাড়ীতে সন্ধি ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে মেয়র ও কাউন্সিলরদের সংবর্ধণা প্রদানফুলবাড়ীতে শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণশান্তিপুর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হচ্ছে নাগেশ্বরী পৌরসভা নির্বাচন

মাগুরা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

ফারুক আহমেদ, মাগুরা প্রতিনিধি

মাগুরা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষকদের কর্মবিরতিতে ১৭ দিন ধরে শ্রেণীকক্ষে পাঠদান বন্ধ থাকার কারনে ১৭ই ফেব্রুয়ারি সোমবার সকাল ১০ টায় কলেজের ২য় শিফটের ২ হাজার ছ্ত্রা-ছাত্রী ইনস্টিটিউট চত্বরে মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছে।

কলেজের প্রিন্সিপাল প্রকৌশলী মোঃ মনির হোসেন ও অন্যান্য শিক্ষকরা জানান, সরকার পে-স্কেল বদলে দেবার কারণে ২০১৫ সালের পে-স্কেল অনুযায়ী যে শিক্ষক ২য় শিফট এর সম্মানী বাবদ তার মুল বেতন ২২ হাজার টাকার স্কেলের ৫০ শতাংশ হিসাবে ১১ হাজার টাকা পাচ্ছিলেন। তা এখন ২০০৯ সালের স্কেল অনুযায়ী মাত্র ৫ হাজার ৫’শ টাকা ধার্য হয়েছে।

অথচ ২য় শিফট এ একজন শিক্ষককে প্রথম শিফট এর মতই দায়িত্ব পালন করতে হয়। এই শিফট এ পাঠদান থাকার কারণে একজন শিক্ষককে সকাল ৮ টায় এসে সন্ধ্যা ৬.৩০টায় বাড়ি ফিরতে হয়। শুধু ১ম শিফট এর পাঠ দান করলে যা দুপুর ১ টায় শেষ হতো। শিক্ষকরা বর্তমান অচলাবস্থা নিরসনে ২০১৫ সালের স্কেলে সম্মানী বহাল নতুবা ২য় শিফট এর জন্য পৃথক শিক্ষক নিয়োগের দাবি জানিয়েছেন।

ছ্ত্রা-ছাত্রীরা জানায়, ২০১৫ সালের পে-স্কেল অনুযায়ী সম্মানী ভাতা পুর্নবহালের দাবীতে গত ১ ফেব্রুয়ারী থেকে মাগুরা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ৪২ জন শিক্ষক কেন্দ্রীয় কর্মসুচি অনুযায়ী এ কর্ম বিরতিতে রয়েছেন। তাদের কর্মবিরতিতে গত ১৭ দিন ধরে ২য় শিফট এর সব শ্রেণীর পাঠ দান বন্ধ হয়ে গেছে। ফলে নির্ধারিত সময়ে পাঠ্যক্রম শেষ করা নিয়ে দুশ্চিন্তায় ভুগছে ২য় শিফট এর শিক্ষার্থীরা। এভাবে ক্লাস না চললে পরীক্ষায় তারা ভাল রেজাল্ট করতে পারবে না।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন ছাত্রনেতা সৈয়দ খালিদ হাসান রুবেল, আবু হুরায়রা, অমিতসহ প্রমুখ। বক্তারা বলে নির্ধারিত সময়ে পাঠ্যক্রম শেষ করা নিয়ে আমরা সমস্ত শিক্ষার্থীরা সমস্যায় পড়েছি। দ্রুত এটির নিরসনের দাবি জানায়ি যথাযথ কতৃপক্ষের দৃর্ষ্টির মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করা হোক।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো