1. admin@bsalnewsonline.com : admin :
  2. alexpam3107@gmail.com : Alexkanda :
  3. editor@dailyekattorjournal.com : জাকির আহমেদ : জাকির আহমেদ
  4. zakirahmed0112@gmail.com : Zakir Ahmed : Zakir Ahmed
  5. vroglina@mail.ru : IsaacCliet :
  6. marcia-tedbury18@lostfilmhd720.ru : marciatedbury :
  7. rayhanchowdhury842@gmail.com : Rayhan :
  8. m.r.rony.007@gmail.com : rony : MahamudurRahm Rahman
  9. ki.po.n.io.m@gmail.com : roxanaaronson3 :
শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ০৪:০৫ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
উলিপুরে গুনাইগাছ ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুর্নীতি ও অনিয়মের অভিযোগ সাদুল্লাপুরের ধাপেরহাটে পিকআপ ভর্তি পলিথিন জব্দ : আটক-২ ফুলপুরে সাহিত্য পরিষদের দোয়া ও ইফতার নাটোরের বাগাতিপাড়ায় বয়স্ক দম্পত্তিকে কুপিয়ে হত্যা বাঙ্গরায় যুবলীগের উদ‍্যোগে পথচারী ও নিন্মআয়ের মানুষদের মাঝে ইফতার বিতরণ কুড়িগ্রামে ৭বছরের শিশু ধর্ষণ- ধর্ষক গ্রেপ্তার সাদুল্যাপুরের নলডাঙ্গা প্রাইমারী স্কুলের প্রধান শিক্ষক মাসুম বিল্লাহ বরখাস্ত প্রস্তাবিত অর্থনৈতিক অঞ্চল পরিদর্শন করলেন এ্যাড. উম্মে কুলসৃম স্মৃতি এমপি পলাশবাড়ী উপজেলা ছাত্রলীগের আয়োজনে ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত সুন্দরগঞ্জে সেতু নেই! বাঁশের সাঁকোয় ঝুঁকিপূর্ণ পারাপার মানুষের

ভালুকায় চলছে ভূমি জবর দখল, রহস্য জনক কারনে নিরব বনবিভাগ

  • Update Time : শুক্রবার, ২৯ নভেম্বর, ২০১৯
  • ১২ বার পড়া হয়েছে

ভালুকা,(ময়মনসিংহ)প্রতিনিধি:

ময়মনসিংহের ভালুকা উপজেলার কাদিগড় বন বিটের অধীন পারাগাঁও মৌজার বড়চালা নামক স্থানে বন গেজেট ভূক্ত ৯৮৮ নং দাগে অবৈধ ভাবে সিমানা প্রাচীর নিমার্ন করে বন ভূমির জমি জবর দখলের অভিযোগ উঠেছে।

জানা যায় হবিরবাড়ির বিক্ষ্যাত ভূমিদস্যু তার সশস্র বাহিনির উপস্থিতিতে প্রায় ৮ একর ভুমি জবর দখলের উদ্বেশে পারাগাঁও মৌজার সিএস ৯৮৭ এবং বন গেজেট ভূক্ত ৯৮৮ নং দাগে অবৈধ ভাবে সিমানা প্রাচীর নির্মান করছে। স্থানীয়রা জানান ৮ একর ভূমির মধ্যে প্রায় ৩ একর ভূমি বন গেজেট ভুক্ত।

অভিযোগ উঠেছে হবিরবাড়ির একটি প্রভাবশালী মহল স্থানীয় বন কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে এ সিমানা প্রাচীর নির্মান করছে। স্থানীয়দের অভিযোগ প্রভাবশালী মহলটি বিভিন্ন ঝামেলাপূর্ণ জমি প্রথমে সিমানা প্রাচীর নির্মান করে দখল করে পরে বিভিন্ন কোম্পানির মালিকের কাছে চড়া দামে বিক্রি করে দেয় আর হাতিয়ে নেয় কোটি কোটি টাকা।

৯৮৮ নং দাগে সিমানা প্রাচীর নির্মান প্রসঙ্গে বনখেকোদের একজন বলেন, এটা সিএস জমি এই জমিটি আমি ক্রয় করে রেখেছি। আমি আমার জমিতে সিমানা প্রাচীর নির্মান করছি এখানে কোন ঝামেলা নেই। এ ব্যাপারে কাদিগড় বিটের বিট কর্মকর্তা আশরাফুল আলম বলেন, যেখানে সিমানা প্রাচীর নির্মান করা হচ্ছে সেটা সিএস ৯৮৭ এবং বন গেজেট ভূক্ত ৯৮৮ দাগ।

আমি ৯৮৮ নং দাগে কাজ করতে নিষেধ করেছি। তারা কাজ অব্যাহত রেখেছে কিনা বিষয়টি আমি জানিনা। ভালুকা রেঞ্জ কর্মকর্তা মোজাম্মেল হক মোবাইল ফোনে সাংবাদিকদের বলেন, আমি উত্তর দিতে বাধ্য নই। তথ্য অধিকার আইনে আবেদন করে তথ্য নিতে হবে।

বিভাগীয় বন কর্মকর্তা রুহুল আমিন বলেন বন ভূমিতে কাজ করেনা। তারা তাদের জমিতেই কাজ করছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

More News Of This Category