English|Bangla আজ ২০শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার রাত ১১:২৯
শিরোনাম
মুরাদনগরের বাঙ্গরার পূৃর্বধৈইরে নবজাগরন সংগঠনের উদ্যাগে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরনমেরকুটা নাইট শট সার্কেল টিভি কাপ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল ম্যাচ ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত।মোংলায় শীতার্ত পরিবারের হাতে কম্বল তুলে দিলেন উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহারঅনলাইন পাবলিক গ্রুপ আমাদের জন্মভূমি- কিশোরগঞ্জ এর দ্বিতীয় ধাপে শীতবস্ত্র বিতরণভালুকা পৌর নির্বাচন: প্রচারণায় ব্যস্ত মমেক ছাত্রলীগ সম্পাদক হাসাননারী ফুটবল লীগে নিজ পরিচয়ে খেলতে চায় রংপুরের পালিচড়ার মেয়েরানবীনগরে বিদ্যুতের অাগুণে পুড়ে চাচা ভাতিজার মৃত্যুবুড়িচংয়ের আনন্দপুরে মানবতার দেয়াল উদ্ভোধন ও শীতবস্ত্র বিতরণবর্ণাঢ্য অায়োজনে কালীগঞ্জে এশিয়ান টিভি’র ৮ম বর্ষপূর্তি উৎযাপন।মহেশপুরে মাদক, বাল্যবিবাহ এবং আত্নহত্যা প্রতিরোধে ওয়ার্কশপ অনুষ্টিত।

গাইবান্ধায় শীতজনিত ডায়রিয়ায় আক্রান্ত শিশুরা

আল কাদরি কিবরিয়া সবুজ, (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ-

গাইবান্ধা জেলায় শীতের প্রকোপে বেড়েছে শিশুর ডায়রিয়া। গত এক সপ্তাহে জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে তিন শতাধিক শিশু হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছেন। গত ২৪ ঘন্টায় ভর্তি হয়েছে ৫৯ শিশু।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, হাসপাতালে ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগীদের জন্য মাত্র ২০টি আসন রয়েছে। কিন্তু প্রতিদিন হাসপাতালে ৪০ থেকে ৫০ জন রোগী ভর্তি হওয়ায় জায়গা দিতে পারছে না হাসপাতাল কতৃপক্ষ। ফলে হাসপাতালের মেঝে ও বারান্দায় চিকিৎসা নিচ্ছেন অনেকেই। এক শিশুর অভিভাবক জানান, হঠাৎ করেই তার দেড় বছরের শিশুটি বমি করতে থাকে। পরে বমির সঙ্গে শুরু হয় পাতলা পায়খানা। ঘনঘন বমি ও পায়খানার কারণে হাসপাতালে ভর্তি করেছি। হাসপাতালে ভর্তির পর স্যালাইন দিয়েছে কিন্তু এখনও কোনও উন্নতি হয়নি।

গাইবান্ধা জেলা সদর হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত আবাসিক মেডিকেল অফিসার শেখ সুলতান আহম্মদ জানান, শীতের শেষে রোটা ভাইরাসের প্রার্দুভাব দেখা দেয়। পাঁচ বছরের নিচের শিশুরা এই ডায়রিয়ায় বেশি আক্রান্ত হয়। সাধারণত দুই-তিন দিন সর্বোচ্চ সাতদিন পর্যন্ত এ ডায়রিয়ার স্থায়িত্ব থাকতে পারে।

অভিভাবকদের সচেতন হওয়ার পাশাপাশি অস্থির না হয়ে শিশুদের পানিশূন্যতারোধে পর্যাপ্ত খাবার স্যালাইন ও রাইস স্যালাইন খাওয়ানোর পরামর্শ দেন এ চিকিৎসক।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো